আগস্ট মাসে ৬১ কোটি টাকার চোরাচালান উদ্ধার করলো বিজিবি

নিজস্ব প্রতিবেদক: পুরো আগস্ট মাস জুড়ে দেশের সীমান্ত এলাকাসহ অন্যান্য স্থানে অভিযান চালিয়ে মোট ৬১ কোটি ২৫ লাখ ৮ হাজার টাকা মূল্যের বিভিন্ন প্রকারের চোরাচালান ও মাদকদ্রব্য উদ্ধার করেছে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি)।

আজ মঙ্গলবার বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) জনসংযোগ কর্মকর্তা মো. শরিফুল ইসলাম এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) সদর দফতরের উদ্ধারকৃত মাদকের মধ্যে রয়েছে- ১২ লাখ ৯ হাজার ৫২৬ পিস ইয়াবা, ৪৩ হাজার ৬৫১ বোতল ফেনসিডিল, ৬ হাজার ৫৬৬ বোতল বিদেশি মদ, ২৮৩ ক্যান বিয়ার, এক হাজার ১৭৫ কেজি গাঁজা, এক কেজি ৪৯৬ গ্রাম হেরোইন, ১৬ হাজার ৩৯৩টি উত্তেজক ইনজেকশন, সাত হাজার ৫৭২টি এ্যানেগ্রা/সেনেগ্রা এবং ৫ লাখ ৮৯ হাজার ৪৩০টি অন্যান্য ট্যাবলেট।

উদ্ধারকৃত অন্যান্য চোরাচালান দ্রব্যের মধ্যে রয়েছে- ৯ কেজি ৮৬৪ গ্রাম সোনা, ৭৪ কেজি ১৫ গ্রাম রূপা, ৮৫৯টি ইমিটেশনের গহনা, ৫০ হাজার ৪০৪টি কসমেটিক্স সামগ্রী, এক হাজার ৯৭২টি শাড়ি, ১৩৩টি থ্রিপিস/শার্টপিস, ২৩ মিটার থান কাপড়, ১৭টি তৈরি পোশাক, ১টি কষ্টি পাথরের মূর্তি, ১৪৯ ঘনফুট কাঠ, ২ হাজার ৮২৩ কেজি চা পাতা, ৪৯ হাজার ৫০৫ কেজি কয়লা, একটি ট্রাক, একটি পিকআপ, ২৩টি সিএনজি/ইঞ্জিন চালিত অটোরিকশা এবং ৭৯টি মোটরসাইকেল। উদ্ধারকৃত অস্ত্রের মধ্যে রয়েছে দুইটি রিভলবার, একটি এলজি এবং ছয় রাউন্ড গুলি।

এছাড়াও সীমান্তে বিজিবির অভিযানে ইয়াবাসহ বিভিন্ন প্রকার মাদক পাচার ও অন্যান্য চোরাচালানে জড়িত থাকার অভিযোগে ২৮৪ জন চোরাকারবারীকে এবং অবৈধভাবে সীমান্ত অতিক্রমের দায়ে ৫৬ জন বাংলাদেশি নাগরিককে আটকের পর তাদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে।