স্কুলছাত্রীকে কুপিয়ে ক্ষতবিক্ষত, তথ্য দিচ্ছে না পরিবার

হবিগঞ্জ প্রতিনিধি, এটিভি সংবাদ

হবিগঞ্জের বানিয়াচংয়ে এক স্কুলছাত্রীকে কুপিয়ে ক্ষতবিক্ষত করেছে দুর্বৃত্তরা। বুধবার ভোরে উপজেলার ইকরাম গ্রামে এ ঘটনাটি ঘটেছে।

গুরুতর আহত অবস্থায় তাকে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে। তবে কেন বা কারা তাকে কুপিয়েছে সে বিষয়ে কোনো তথ্য দিচ্ছে না পরিবার।

আহত মারজানা আক্তার (১৬) ইকরাম গ্রামের মৃত মোস্তফা মিয়ার মেয়ে। সে স্থানীয় একটি স্কুলের অষ্টম শ্রেণির ছাত্রী।

স্থানীয়রা জানান, মারজানা আক্তার মঙ্গলবার রাতে বাড়ির ঘরে একা ঘুমিয়ে পড়ে। বুধবার ভোরে একদল দুর্বৃত্ত ঘরে ঢুকে তাকে কুপিয়ে ক্ষতবিক্ষত করে। সকালে পাশের বাড়ির একজন তাকে ডাকতে গিয়ে রক্তাক্ত অবস্থায় মাটিতে লুটিয়ে পড়ে থাকতে দেখতে পান।

এ সময় তিনি চিৎকার শুরু করলে আশপাশের লোকজন এগিয়ে এসে তাকে উদ্ধার করে সকালে আধুনিক সদর হাসপাতালে প্রেরণ করেন। হাসপাতালে তার অবস্থার অবনতি ঘটলে বেলা ১১টার দিকে তাকে সিলেটে ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে।

ঘটনাটি রহস্যজনক উল্লেখ করে বানিয়াচং থানার ওসি মো. এমরান হোসেন জানান, মেয়েটি বা তার পরিবার এ বিষয়ে পুলিশকে কোনো তথ্য দিচ্ছে না। তাদের সঙ্গে বারবার কথা বললেও তারা বলছে পরে জানাবে। পুলিশ ইতোমধ্যে বিষয়টির রহস্য উদ্ঘাটনে কাজ শুরু করেছে। ধারণা করা হচ্ছে এটি প্রেমের সম্পর্কের জের হতে পারে।