গাজা উপত্যকায় ফের বিমান হামলা চালাল ইসরায়েল।

অনলাইন ডেস্ক, এটিভি সংবাদ 
গাজায় বুধবার বিমান হামলা চালিয়েছে ইসরায়েল। টানা ১১ দিনের লড়াই শেষে যুদ্ধবিরতির পর প্রথম সংঘাত শুরু হলো। ইসরায়েলের নতুন সরকার ক্ষমতা নেওয়ার পর প্রথম বিমান হামলাও এটা।

 

রয়টার্স এক প্রতিবেদনে বলেছে, মঙ্গলবার পূর্ব জেরুজালেমে ইহুদি জাতীয়তাবাদীদের শোভাযাত্রা ঘিরে নতুন করে উত্তেজনা দেখা দেয় ফিলিস্তিন ও ইসরায়েলের মধ্যে। ওই শোভাযাত্রার জবাব দেওয়া হবে বলে আগেই হুমকি দিয়ে আসছিল গাজার নিয়ন্ত্রণকারী হামাস।

ইসরায়েলের দাবি, ফিলিস্তিন থেকে আগুন বেলুন ছোড়ার পাল্টা জবাবে এ হামলা চালায় তারা। তবে এ হামলায় এখন পর্যন্ত হতাহতের কোন খবর পাওয়া যায়নি।

 

এর আগে গত ২১ মে টানা ১১ দিনের সংঘাতের পর যুদ্ধবিরতিতে সম্মত হয় ইসরায়েল ও হামাস। ওই সংঘাতে প্রায় ২৫৬ ফিলিস্তিনি নিহত হয়। এর মধ্যে ৬৬ জনই শিশু। অপরদিকে দুই হাজারের বেশি মানুষ আহত হয়েছে। এছাড়া ইসরায়েলে রকেট হামলায় ১২ জন নিহত হয়েছে। তবে হতাহতদের মধ্যে বেশিরভাগই সাধারণ নাগরিক।

 

২১ মে যুদ্ধবিরতির পর এই প্রথম হামলা চালালো দখলদার ইসরায়েলি বাহিনী। সম্প্রতি দেশটিতে নতুন সরকার গঠন করেছে ডানপন্থী জাতীয়তাবাদী জামিনা পার্টির নাফতালি বেনেট। ফলে সমাপ্ত হলো বেঞ্জামিন নেতানিয়াহুর ১২ বছরের শাসন। জোট গঠনের শর্ত হিসেবে বেনেট ২০২৩ সালের সেপ্টেম্বর পর্যন্ত প্রধানমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব পালন করবেন।

 

ইসরায়েলের সামরিক বাহিনীকে উদ্ধৃত করে রয়টার্স বলছে, গাজা সিটি এবং দক্ষিণাঞ্চলীয় শহর খান ইউনিসে হামাসের সশস্ত্র স্থাপনায় হামলা করেছে তাদের যুদ্ধবিমান। তারা ‘সব পরিস্থিতির জন্য প্রস্তুত আছে, গাজার ধারাবাহিক সন্ত্রাসী হামলা নস্যাৎ করতে প্রয়োজনে আবারও লড়াই শুরু করা হবে’।