ফরিদপুরে হাসপাতাল এলাকা থেকে ৮ দালাল আটক

আবু নাসের হোসাইন (ফরিদপুর), এটিভি সংবাদ  

ফরিদপুর বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল এলাকা থেকে ৮ দালালকে আটক করেছে পুলিশ। বৃহস্পতিবার দুপুর থেকে রাত পর্যন্ত কোতোয়ালি থানা পুলিশ বিশেষ অভিযান চালিয়ে তাদের আটক করে।

শুক্রবার দুপুরে কোতোয়ালি থানা পুলিশ এক সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানায়। সংবাদ সম্মেলনে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার জামাল পাশা বলেন, ফরিদপুর বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল এলাকায় কতিপয় দালাল চক্র, প্রতারক ও চাঁদাবাজ সন্ত্রাসীরা বিভিন্ন এলাকা হতে আগত অসুস্থ রোগীদের গাড়ির গতিরোধ করে প্রতারণার মাধ্যমে চাঁদা আদায় করত। হাসপাতালে আসা রোগী ও স্বজনদের সঙ্গে প্রতারণার মাধ্যমে প্রাইভেট হাসপাতাল ও ক্লিনিকে নিয়ে জোরপূর্বক টাকা আদায় করত। তাছাড়া রোগীদের চিকিৎসাপত্র নিয়ে ওষুধ কিনে বেশি দাম ধরিয়ে দেওয়া হতো।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার জামাল পাশা আরও বলেন, রোগী ও তাদের স্বজনরা টাকা দিতে অস্বীকার করলে ভয়ভীতি ও হুমকি দিয়ে টাকা নেওয়া হতো। জেলা ও জেলার বাইরে থেকে আসা রোগী ও তাদের স্বজনদের বলা হয়- সরকারি হাসপাতালে চিকিৎসা ভালো হয় না। ভালো চিকিৎসা পেতে হলে প্রাইভেট ক্লিনিক ও হাসপাতালে ভর্তি হতে হবে। তারা এমন মিথ্যা প্রলোভন দেখিয়ে রোগীদের অখ্যাত হাসপাতাল ও ক্লিনিকে নিয়ে যেত।

অতিরিক্ত এই পুলিশ সুপার জানান, অভিযোগের ভিত্তিতে পুলিশ অভিযান চালিয়ে শাহীন শেখ, রাসেল শেখ, জামাল প্রমাণিক ওরফে নাছির, প্লাবন মোল্লা, কামরুজ্জামান ওরফে রাব্বি শেখ, নাহিদ মৃধা, শহিদুল বিশ্বাস, রোমান হোসেনকে আটক করা হয়।

সংবাদ সম্মেলন বলা হয়, একশ্রেণির ক্লিনিক মালিক দালালদের মাধ্যমে রোগী ভর্তি করে তাদের কাছ থেকে অতিরিক্ত টাকা আদায় করে লাভবান হচ্ছিল। এ চক্রের সঙ্গে যারা জড়িত রয়েছে তাদের ধরতে অভিযান অব্যাহত থাকবে। এ ঘটনায় কোতোয়ালি থানায় মামলা হয়েছে।

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন, কোতোয়ালি থানার ওসি এম এ জলিল, ওসি তদন্ত আবুল খায়ের প্রমুখ।