মিরসরাইয়ে ৪ পা নিয়ে জন্ম হলো কন্যা সন্তানের!

চট্টগ্রাম ব্যুরো, এটিভি সংবাদ  

সংবাদ শিরোনাম দেখে হতবাক হবার কিছুই নেই। চট্টগ্রামের মিরসরাইয়ে চার পা বিশিষ্ট এক কন্যা শিশুর জন্ম হয়েছে। ওই শিশুর দুটি পা ক্লাব ফুট (মুগর পা) এবং বাকি দুটিও অস্বাভাবিক। শিশুটির মেরুদণ্ডটিও মেনিনগোসিল (কোনো কোনো শিশুর জন্মের পর মাথার পেছনে বা পিঠের নিচের দিকে কোনো একটি অংশ অস্বাভাবিকভাবে ফুলে থাকে) প্রকৃতির।

মঙ্গলবার (১৭ জানুয়ারি) ভোর ৫টার দিকে মিরসরাইয়ের বারৈয়ারহাট পৌরসভার শেফা ইনসান হাসপাতাল অ্যান্ড ডায়াগনস্টিক সেন্টারে ওই শিশুর জন্ম হয়। শিশুটির মা নাসরিন আক্তার। তিনি ফটিকছড়ি উপজেলার ভুজপুর থানার বাগান বাজার ইউনিয়নের হাতির খেদা গ্রামের সাইদুল ইসলামের স্ত্রী।

ksrm

হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে, সোমবার দিনগত রাত দুইটার দিকে প্রসব বেদনা নিয়ে হাসপাতালে ভর্তি হন নাসরিন আক্তার। পরে ভোর ৫টার দিকে কন্যা সন্তানের জন্ম দেন তিনি। তার নরমাল ডেলিভারি ছিল। ডেলিভারির পর দেখা যায়, কন্যা শিশুটি চার পা বিশিষ্ট। শিশুটির মা সুস্থ আছেন। তবে নবজাতকের হালকা শ্বাসকষ্ট রয়েছে বলে জানিয়েছে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ।

ওই হাসপাতালের নবজাতক ও শিশুরোগ বিশেষজ্ঞ ডা. এস এ ফারুক বলেন. স্বাভাবিকভাবে শিশুটির জন্ম হয়েছে। শিশুর ওজন দুই কেজি ৮শ গ্রাম। তবে ৪টি পায়ের মধ্যে ২টি ক্লাব ফুট মানে মুগর পা, অন্য দুটি পাও অস্বাভাবিক। শিশুটির মেরুদণ্ডটিও মেনিনগোসিল।

শিশুটির বাবা সাইদুল ইসলাম জানান, এর আগে একটি পুত্র সন্তান হয়েছিল তাদের। তবে জন্মের পর সে মারা যায়।