atv sangbad

Blog Post

শ্রীলংকায় জ্বালানির জন্য হাহাকার!

আন্তর্জাতিক ডেস্ক, এটিভি সংবাদ 

একদিন চলার মতো মাত্র জ্বালানি আছে। শ্রীলংকার জ্বালানি মন্ত্রী রোববার এমন কথা জানান। এর মাধ্যমে তিনি জানিয়ে দেন, শ্রীলংকায় সাময়িক সময়ের জন্য বন্ধ হয়ে যাচ্ছে গাড়ির চাকাও।

শ্রীলংকার জ্বালানি মন্ত্রী কাঞ্চনা উইজেসেকেরা বলেন, আমাদের হাতে আর মাত্র ৪ হাজার টন ফুয়েল আছে। শ্রীলংকায় একদিনে এরচেয়ে বেশি ফুয়েল প্রয়োজন হয়।

বর্তমানে শ্রীলংকায় জ্বালানির জন্য হাহাকার চলছে। এক লিটার তেল পাওয়ার জন্য ঘণ্টার পর ঘণ্টা অপেক্ষা করতে হচ্ছে। তবুও মিলছে না। বেশিরভাগ স্টেশনগুলো বন্ধ হয়ে গেছে।

রোববার শ্রীলংকায় আরও লম্বা সময়ের জন্য স্কুল বন্ধ রাখার ঘোষণা দেওয়া হয়। কারণ স্কুল চালানোর মতো পরিস্থিতি এখন দেশে নেই।

শ্রীলংকার প্রধানমন্ত্রী রানিল বিক্রমাসিংহে গত সপ্তাহে গণমাধ্যম আল জাজিরার কাছে জানান, শ্রীলংকায় ২২ জুলাইয়ের আগে জ্বালানির নতুন কোনো চালান আসবে না।

তবে আগামী চার মাস চলার মতো গ্যাস তাদের কাছে এসেছে বলে জানান লংকান প্রধানমন্ত্রী।

প্রধানমন্ত্রী আরও জানান, তাদের সবচেয়ে বেশি সমস্যার কারণ হলো পেট্রোল। ২২ জুলাই পেট্রোলের নতুন চালান আসলে হয়ত সমস্যা কেটে যাবে।

তবে রোববার প্রধানমন্ত্রী বলেন, সরকার বিপুল পরিমাণ জ্বালানি আমদানি করার চুক্তি করেছে। শুক্রবার ৪০ হাজার টন ডিজেল আসবে।

তবে শ্রীলংকার প্রধান সমস্যা হলো অর্থ। বাইরের দেশ থেকে কোনো কিছু কেনার জন্য তাদের হাতে অর্থ নেই।

এ কারণে বিদেশে বসবাসরত শ্রীলংকানদের তারা আহ্বান জানিয়েছেন, যেন বৈধ উপায়ে শ্রীলংকায় তারা বেশি বেশি করে রেমিটেন্স পাঠান। তারা যদি অর্থ পাঠান তাহলে হয়ত এ সমস্যা থেকে বাঁচা যাবে।

সূত্র: আল জাজিরা

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

ব্রেকিং নিউজ :